শহর প্রতিনিধি : একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ফেনী-৩ (দাগনভূঞা- সোনাগাজী) আসনে খেলাফত মজলিসের প্রার্থী হতে চান ঢাকা মহানগর সভাপতি হাফেজ মাওলানা এনামুল হক মূসা। গতকাল রবিবার দুপুরে শহরের একটি রেস্টুরেন্টে সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময় করেন তিনি। জাতীয়পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ নেতৃত্বাধীন সম্মিলিত জাতীয় জোটের মনোনয়ন প্রত্যাশী সাবেক এ ছাত্রনেতা। ইসলামী ছাত্র মজলিসের কেন্দ্রীয় সভাপতিরও দায়িত্বে ছিলেন।

সভায় হাফেজ এনামুল হক মূসা বলেন, ইসলাম শান্তির ধর্ম। খেলাফতের মাধ্যমে আল্লাহর জমিনে ইসলাম কায়েম ছাড়া শান্তি প্রতিষ্ঠা সম্ভব নয়। তার নেতৃত্বে বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের তৃণমূল নেতাকর্মীরা সুসংগঠিত রয়েছে। তিনি নির্বাচিত হলে ফেনীবাসীর অভূত উন্নয়ন সাধন করবেন। নির্বাচন কমিশনের নিবন্ধিত তার দলীয় প্রতীক রিকশা।

সভায় অন্যদের মধ্যে খেলাফত মজলিসের জেলা সভাপতি মাও. জসিম উদ্দিন এলাহী, সহ-সভাপতি মাও. আমির হোসেন, মাও. দেলোয়ার হোসেন, সেক্রেটারী মাও. নুরুন নবী, নোয়াখালী জেলা সেক্রেটারী মাও. আবদুল কাইয়ূম, ফেনী জেলা সাংগঠনিক সম্পাদক মাও. মো. নজরুল ইসলাম, জেলা বায়তুল মাল সম্পাদক মাও. জামাল উদ্দিন, সোনাগাজী উপজেলা সভাপতি মুফতি মাও. আবদুর রহমান, সহ-সভাপতি মাও. নুরুল আলম, সেক্রেটারী মাও. আশ্রাফ আলী, ছাগলনাইয়া উপজেলা সভাপতি মাও. আবুল কাশেম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এনামুল হক মূসা আরো বলেন, ইনসাফ ভিত্তিক সমাজ গঠন, সন্ত্রাস ও দুর্নীতি মুক্ত রাষ্ট্র ব্যবস্থা প্রবর্তনকল্পে খেলাফত মজলিসের সদস্যরা দেশব্যাপী অকুতোভয় ভূমিকা পালন করে যাচ্ছে। ১৯৮৯ সালের ৮ ডিসেম্বর আল্লামা মুফতি আজিজুল হকের হাতে গড়া দলটি প্রতিষ্ঠার পর থেকে ইসলামী হুকুমাত ও কাওমী সনদ স্বীকৃতির জন্য কাজ করে যাচ্ছে।