স্টাফ রিপোর্টার : ফেনী শহরের শহীদ শহীদুল্লা কায়সার সড়কে সিএনজি অটোরিক্সা একদিন বন্ধ রাখার পর ফের চলাচলের অনুমতি দিয়েছে পৌরসভা। আগের ভাড়া ৭ টাকার সিদ্ধান্ত মেনে নিয়েছে সিএনজি অটোরিক্সা চালকরা। গতকাল মঙ্গলবার রাতে চালক-মালিকদের এ সিদ্ধান্তের কথা জানান মেয়র হাজী আলাউদ্দিন।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, গতকাল মঙ্গলবার দিনভর সিএনজি অটোরিক্সা চলাচল বন্ধ রাখার পর চালক-মালিকরা পৌরসভা প্রাঙ্গনে ভীড় জমান। একপর্যায়ে রাতে পৌর মেয়র হাজী আলাউদ্দিন ৭ টাকার ভাড়ায় চলাচলের সিদ্ধান্তের কথা জানান। এসময় প্যানেল মেয়র ও যানজট নিরসন কমিটির আহবায়ক নজরুল ইসলাম স্বপন মিয়াজী, কাউন্সিলর মো: কোহিনুর আলম এবং পৌরসভার সচিব খান মোহাম্মদ ফারাভী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে গ্যাসের দাম বাড়ার অজুহাতে বৃহস্পতিবার থেকে শহরের প্রধান সড়ক মহিপাল থেকে ট্রাংক রোড রুটে সিএনজি অটোরিক্সা চালকরা ৩ টাকা করে বাড়তি ভাড়া আদায় করেন। এনিয়ে যাত্রীদের সাথে চালকদের বাকবিতন্ডা নিত্যনৈমিত্তিক হয়ে দাঁড়ায়। দূর্ভোগের শিকার হন শিক্ষার্থী সহ স্বল্প আয়ের মানুষরা। রবিবার দৈনিক ফেনীর সময় এ সংক্রান্ত বিস্তারিত প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। এছাড়া যাত্রীদের পক্ষ থেকেও পৌরসভায় অভিযোগ দেয়া হয়। এ প্রেক্ষিতে সোমবার এক সভায় পৌর মেয়র হাজী আলাউদ্দিন শহীদ শহীদুল্লা কায়সার সড়কে আগের ভাড়ায় না চালালে মঙ্গলবার থেকে সিএনজি অটোরিক্সা চলাচল বন্ধের নির্দেশ দেন। হঠাৎ সিএনজি অটোরিক্সা বন্ধ হওয়ায় যাত্রী দূর্ভোগ এড়াতে পৌরসভার পক্ষ থেকে মহিপাল থেকে ট্রাংক রোড রুটে অতিরিক্ত গ্রীন টাউন সার্ভিস দেয়া হয়।

 

antalya escort bursa escort adana escort mersin escort mugla escort samsun escort konya escort