মোহাম্মদ শেখ কামাল : ফেনী জেলা প্রশাসক মো: ওয়াহিদুজ্জামান বলেছেন, শ্রেণী কক্ষে কোন শিক্ষক মোবাইল ফোন ব্যবহার করবেন না। মোবাইল ফোন অফিসে রেখে ক্লাসে যাবেন। ছাত্র-ছাত্রীদেরকে মোবাইল ফোন ব্যবহার করতে দিবেন না। শিক্ষার্থীদেরকে কখনো গায়ে আঘাত করবেন না। স্বাস্থ্যবিধি, নিয়ম-শৃংখলা, সাঁতার, খেলাধূলা শেখাবেন। এলাকা সম্পর্কে ধারনা দিবেন। জাতীয় দিবসগুলো পালন করবেন। স্কুল আঙ্গিনায় ফুল ও ফলের গাছ লাগাবেন। বার্ষিক ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতা এবং পিকনিক এর আয়োজন করবেন। ছাত্র-ছাত্রীদেরকে নিজের সন্তানের মতো আদর-যতœ করবেন।

গতকাল বুধবার দুপুরে উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে জাতীয় প্রাথমিক শিক্ষা সপ্তাহ-২০১৯ উপলক্ষে ছাগলনাইয়া উপজেলা শিক্ষা অফিস আয়োজিত প্রাথমিক শিক্ষার গুনগত মান উন্নয়নে ছাগলনাইয়া উপজেলাধীন সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকগণের সাথে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

জেলা প্রশাসক বলেন, ২০৪১ সালে বাংলাদেশ উন্নত দেশ হবে। উন্নত দেশের জন্য লাগবে উন্নত নাগরিক। আপনারা যদি গ্রাম থেকে ভালো ছাত্র-ছাত্রী তৈরী করে শহরে না পাঠান তাহলে ভালো ও উন্নত নাগরিক পাওয়া যাবেনা। মনে রাখবেন আপনি নিজেই নিজের শ্রেষ্ঠ বিচারক। সরকারের বেতন ও সুযোগ সুবিধা গ্রহণ করে যদি দায়িত্বে অবহেলা করেন তাহলে আল্লাহর কাছে জবাব দিতে হবে। আমরা যেন সর্বদা অপরের মঙ্গল করতে পারি এই হউক আমাদের শপথ।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহিদা ফাতেমা চৌধুরীর সভাপতিত্বে এবং প্রধান শিক্ষক জাকির হোসেন সোহাগের সঞ্চালনায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন ছাগলনাইয়া উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা মহিউদ্দিন। বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা মো: নুরুল ইসলাম, ছাগলনাইয়া থানার ওসি এম.এম মুর্শেদ পিপিএম, উপজেলা সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা মো: শাহ আলম ও মো: আবদুল গণি, ছাগলনাইয়া প্রেস ক্লাবের সভাপতি মোহাম্মদ শেখ কামাল, সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম চৌধুরী ও উপজেলা শিক্ষক সমিতির সভাপতি প্রধান শিক্ষক মোকছেদ আহাম্মদ পাটোয়ারী। বক্তব্য রাখেন প্রধান শিক্ষক আবদুর রউফ, প্রধান শিক্ষক মানিক চন্দ্র শীল প্রমূখ। মতবিনিময় সভার পূর্বে এক বর্ণাঢ্য র‌্যালি বের করা হয়। এতে বিভিন্ন স্কুলের শিক্ষক, ছাত্র-ছাত্রী, অভিভাবক, সাংবাদিক ও এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ অংশ নেন।